ইউজার জেনারেটেড কন্টেট কী ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্টের গুরুত্ব।

ইউজার জেনারেটেড কন্টেট কী ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্টের গুরুত্ব
Share This Post

সাম্প্রতিক মার্কেটিং জগতে ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট বা ইউজিসির জনপ্রিয়তা ব্যাপক হারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। 

ইজিসি হচ্ছে এমন যেকোনো কন্টেন্ট যা একটি ব্র্যান্ড, প্রোডাক্ট, অথবা সার্ভিস প্রমোট এর জন্য তৈরি করা হয় এবং শেয়ার করা হয়। 

অনলাইন বিজনেস টিকিয়ে রাখার জন্য এবং বেশি বেশি কাস্টমার আকর্ষণ করে সেল বৃদ্ধি করার জন্য ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট এর ব্যাপক গুরুত্ব রয়েছে।

চলুন জেনে আসি ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট কাকে বলে এবং এর গুরুত্ব সম্পর্কে।

ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট কাকে বলে?

আপনি কি কখনোও ইউজিসি এর কথা শুনেছেন? এটার পূর্ণরূপ হলো ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট, এবং এটি বেশ চমৎকার।

ইউজিসি হলো এমন এক ধরণের কন্টেন্ট যা সাধারণত আপনার ব্র্যান্ড সম্পর্কে কাস্টমাররা তৈরি করে এবং সোশ্যাল মিডিয়া বা অন্য কোন চ্যানেলে পোস্ট করেন।

তাই, নিজে সব কন্টেন্ট তৈরি করার পরিবর্তে, আপনার ক্রেতাই আপনার জন্য এটি করে দিচ্ছেন।

ইউজিসি বিভিন্ন রকম হতে পারে, যেমন: ছবি, ভিডিও, রিভিও, প্রশংসাপত্র অথবা এমনকি পডকাস্টের মাধ্যমে।

এছাড়াও, এটি খুবই শক্তিশালী একটি মার্কেটিং টুল হতে পারে কারণ লোকজন সবচেয়ে বেশি বিশ্বাস করে যেই কন্টেন্টগুলি ব্র্যান্ড থেকে না এসে বরং অন্য গ্রাহক থেকে আসে।

ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট কেন গুরুত্বপূর্ণ?

ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট (ইউজিসি) গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন কারণে। এখানে কিছু উল্লেখ করা হলো:

অথেনটিসিটি

ইউজিসি হলো অথেনটিক কন্টেন্ট যা রিয়েল কাস্টমারের মাধ্যমে তৈরি হয় যারা আপনার ব্র্যান্ড সম্পর্কে অনেক আগ্রহী। এই ধরণের কন্টেন্টগুলি সবচেয়ে বেশি বিশ্বাসযোগ্য এবং রিলেটেবল সেই কন্টেন্টের তুলনায় যা ব্র্যান্ড থেকে তৈরি করা হয়। যখন ক্রেতারা ইউজিসি দেখেন সম্ভবত তারা বেশি বিশ্বাস করতে পারেন যে, এই ব্র্যান্ডটি বিশ্বাসযোগ্য এবং আসল।

সোশ্যাল প্রুফ

ইউজিসি ব্র্যান্ডের জন্য সোশ্যাল প্রুফ হিসেবে কাজ করে। যখন সম্ভাব্য ক্রেতারা দেখেন যে অন্যরা আপনার পণ্যটি ব্যবহার এবং উপভোগ করছেন অথবা পরিষেবা নিচ্ছেন, সম্ভবত তারা তখনই আপনার পণ্যটি ক্রয় করার জন্য বেশি বিশ্বাস রাখতে পারে।

এনগেজমেন্ট

ইউজিসি আপনাকে কাস্টমারদের সাথে এনগেজ থাকতে এবং আপনার ব্র্যান্ডকে ঘিরে একটি কমিউনিটি তৈরি করতে সাহায্য করে। যখন কাস্টমার দেখে যে তাদের কন্টেন্টগুলি আপনার ব্র্যান্ড এর মাধ্যমে শেয়ার করা এবং ফিচার করা হয়েছে, তখন তারা নিজেদেরকে মূল্যবান এবং প্রশংসিত মনে করে। এটি আপনার ব্র্যান্ড এবং আপনার গ্রাহকের মধ্যকার সম্পর্ককে সযত্নে লালন করে।

কোস্ট-ইফেক্টিভ

আপনার নিজস্ব কন্টেন্ট তৈরির তুলনায় ইউজিসি প্রায়ই অনেক কোস্ট-ইফেক্টিভ হয়। যখন আপনার গ্রাহক আপনার জন্য কন্টেন্ট তৈরি করেন তখন আপনাকে কন্টেন্ট ক্রিয়েশন বা প্রোডাকশনের জন্য কোন ধরণের টাকা খরচ করতে হয় না। এটি আপনাকে এক্টিভ এবং এনগেজিং সোশ্যাল মিডিয়া উপস্থিতি বজায় রেখে টাকা বাঁচাতে সাহায্য করে।

সর্বোপরি,  বিশ্বাস, এনগেজমেন্ট এবং সোশ্যাল প্রুফ হিসেবে ইউজিসি আপনার ব্র্যান্ডের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ টুল হিসেবে বিবেচিত হয়। 

আপনার গ্রাহককে কন্টেন্ট তৈরি এবং শেয়ার করার জন্য উৎসাহ দেওয়ার মাধ্যমে, আপনি এবং তাদের মধ্যকার সম্পর্ককে আরো গভীর করতে পারবেন এবং নতুন নতুন কাস্টমারকে আপনার পণ্যের প্রতি আকৃষ্ট করতে পারবেন যারা সত্যিকার অর্থে আপনার ব্র্র্যান্ডের প্রতি আগ্রহী।

ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট এর ধরণ

বিভিন্ন ধরণের ইউজার জেনারেটেড (ইউজিসি) কন্টেন্ট রয়েছে যা একটি ব্র্যাান্ডকে নিয়ে একজন কাস্টমার কন্টেন্ট তৈরি এবং শেয়ার করতে পারেন। নিচে কিছু সাধারণ উদাহরণ তুলে ধরা হলো:

রিভিও

রিভিও হলো সবচেয়ে সাধারণ ইউজিসি। কাস্টমাররা রিভিও দিতে পারেন ব্র্যান্ডের ওয়েবসাইটে অথবা Yelp বা Google My Business এর মতো তৃতীয় পক্ষের সাইটে।

সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট

গ্রাহকরা সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে একটি ব্র্যান্ডকে নিয়ে পোস্ট তৈরি এবং শেয়ার করতে পারেন। এর মধ্যে অন্তর্ভূক্ত থাকতে পারে ছবি, ভিডিও এবং টেক্সট।

ইউজার ফটো

ব্র্যান্ডগুলি তাদের কাস্টমারদেরকে অনুরোধ করতে পারেন তাদের ব্র্যান্ডের পণ্যটি ব্যবহারের বা পরিষেবার ছবি শেয়ার করার জন্য। এই ছবিগুলো শেয়ার করা যেতে পারে সোশ্যাল মিডিয়া বা ব্র্যান্ডটির নিজস্ব সাইটে।

টেস্টিমোনিয়ালস

প্রশংসাপত্র হলো আপনার ব্র্যান্ডকে নিয়ে কাস্টমার থেকে প্রাপ্ত তাদের অভিজ্ঞতা সম্পর্কিত একটি স্টেটমেন্ট । এটা ব্যবহার করা যেতে পারে আপনার ব্র্যান্ডের ওয়েবসাইটে অথবা মার্কেটিং ম্যাটারিয়ালসে।

ভিডিও

গ্রাহকরা একটি ব্র্যান্ড নিয়ে ভিডিও তৈরি এবং শেয়ার করতে পারেন। এটার মধ্যে অন্তর্ভূক্ত থাকতে পারে পণ্যের রিভিও, ব্যবহারবিধি বা উপস্থাপনা।

ব্লগ পোস্ট

ক্রেতা একটি ব্লগ পোস্ট লিখতে পারেন তার অভিজ্ঞতা সম্পর্কে আপনার ব্র্যান্ড বা অন্য কোন প্রোডাক্ট নিয়ে। এই পোস্টগুলি সোশ্যাল মিডিয়াতে বা ব্র্যান্ডের ওয়েবসাইটে শেয়ার করা যেতে পারে। 

পডকাস্ট

কাস্টমার আপনার ব্র্যান্ড অথবা কোন পণ্য নিয়ে পডকাস্ট তৈরি এবং শেয়ার করতে পারেন। এই পডকাস্টগুলি ব্র্যান্ডের ওয়েবসাইটে অথবা সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করা যেতে পারে।

সর্বোপরি, বিভিন্ন ধরণের ইউজিসি রয়েছে যেগুলো একজন কাস্টমার তৈরি এবং শেয়ার করতে পারেন ব্র্যান্ডকে নিয়ে। 

আপনার ক্রেতাকে উৎসাহী দিয়ে আপনার ব্র্যান্ডকে নিয়ে তাদের অভিজ্ঞতা এবং চিন্তা শেয়ার করার মাধ্যমে, আপনি তাদের সাথে আপনার সম্পর্ক আরো গভীর করতে পারবেন এবং অনলাইনে আরো এনগেজিং এবং অথেনটিক উপস্থিতি তৈরি করতে সক্ষম হবেন।

সেরা কিছু ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট এর উদাহরণ

  • Coca-Cola’s “Share a Coke” Campaign
  • Apple’s #ShotoniPhone Campaign
  • Starbucks’s #WhiteCupContest
  • National Geographic’s #WanderlustContets
  • Netflix – Stranger Things 2
  • Adobe – The Art Maker Series
  • KFC – Chicken Sandwich
  • Spotify – #FindYourFeels
  • Reddit – Maybe Together We’ll
  • Airbnb – Instagram feed

ইউজার কন্টেন্ট টিপস

আপনার ব্র্যান্ডকে নিয়ে আপনিও যদি আপনার গ্রাহককে ইউজার জেনারেটেড (ইউজিসি) কন্টেন্ট তৈরি করতে উৎসাহী করতে চান, এখানে মনে রাখার মতো কিছু টিপস তুলে ধরা হলো:

গ্রাহকদের জন্য ইউজিসি তৈরি এবং শেয়ার করা যত বেশি সহজ হবে, তাদের এটি করার সম্ভাবনা তত বেশি হবে। 

তাই এটা নিশ্চিত করুন যে, কন্টেন্ট তৈরি এবং শেয়ার করার জন্য তাদেরকে আপনি পরিষ্কার দিক-নির্দেশনা এবং গাইডলাইন প্রদান করছেন এবং যতটা সম্ভব এই প্রক্রিয়াটিকে সহজ রাখার চেষ্টা করুন।

অফার ইনসেনটিভস

ডিসকাউন্ট বা পুরষ্কারের মতো ইনসেনটিভগুলো হতে পারে একটি সহজ উপায় আপনার ক্রেতাকে ইউজিসি কন্টেন্ট তৈরি এবং শেয়ার করতে উৎসাহী করার জন্য। 

এটাও নিশ্চিত করুন যে, ইনসেনটিভগুলো আপনার ব্র্যান্ডের সাথে সম্পর্কিত এবং আপনার কাস্টমারের চেষ্টাকে মূল্যায়িত করার মতো।

কাস্টমারের সাথে এনগেজমেন্ট

যখন ইউজিসিগুলি আপনার ওয়েবসাইট এবং অনান্য সোশ্যাল মিডিয়া চ্যানলগুলিতে শেয়ার করছেন, এটা নিশ্চিত করুন যে, আপনি সেরা কন্টেন্টগুলিকে হাইলাইট করছেন। 

পাশাপাশি এই কন্টেন্টগুলি অন্য কাস্টমারদেরকেও কন্টেন্ট তৈরি এবং শেয়ার করতে উৎসাহী করবে, এবং এটি আপনার ব্র্যান্ডকে ঘিরে একটি সচেতন কমিউনিটি তৈরি করতে সাহায্য করবে।

অথেনটিক থাকুন

ইউজিসি সবচেয়ে ভালো দিক হলো এর অথেনটিক এবং জেনুইন থাকা। তাই এটা নিশ্চিত করুন যে, কন্টেন্ট তৈরিতে আপনার কাস্টমারকে নিয়ন্ত্রণ বা প্রভাবিত করার চেষ্টা করছেন না। 

এর পরিবর্তে অথেনটিসিটি ছড়িয়ে দিন এবং এটি উপস্থাপন করুন যে আপনি আপনার ক্রেতার বিশ্বাস এবং মতামতের মূল্য দিচ্ছেন।

এই টিপসগুলি অনুসরণ করে, ইউজিসি কন্টেন্ট তৈরি এবং শেয়ার করতে আপনার গ্রাহককে উৎসাহিত করতে পারবেন যা আপনার ব্র্যান্ডের প্রতি মানুষের বিশ্বাস, এনগেজমেন্ট এবং ব্র্যান্ডকে ঘিরে বিশ্বস্ত কমিউনিটি তৈরি করতে সাহায্য করবে। শুভকামনা!

ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট টুলস

এখানে কিছু সেরা ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট টুলস এবং তাদের প্রত্যেকের মূল ব্যবহার সংক্ষেপে উপস্থাপন করা হলো-

  • TINT: একাধিক সোশ্যাল মিডিয়া চ্যানেল থেকে ইউজিসি এক জায়গায় অরগানাইজ এবং প্রদর্শন করে। 
  • Yotpo: ওয়েবসাইট এবং সোশ্যাল মিডিয়া থেকে কাস্টমার রিভিউ এবং বিভিন্ন ছবি কালেক্ট করে তা প্রদর্শন করে। 
  • Olapic: বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া চ্যানেল থেকে ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট অরগানাইজ করে এবং তা ওয়েবসাইট এবং মার্কেটিং ম্যাটারিয়ালসে প্রদর্শন করে।  
  • Pixlee: বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া চ্যানেলসহ নিজস্ব ওয়েবসাইট এবং ব্লগ থেকে ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট সংগ্রহ এবং অরগানাইজ করে। 
  • Curalate: বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া চ্যানেল থেকে ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট অরগানাইজ করে এবং তা ওয়েবসাইট এবং মার্কেটিং ম্যাটারিয়ালসে প্রদর্শন করে।
  • Stackla: এটি আপনাকে একাধিক চ্যানেল যেমন ওয়েবসাইট, সোশ্যাল মিডিয়া, এবং ডিজিটাল এডভার্টাইজিং এ ইউজিসি ডিসকাভার, ম্যানেজ, এবং পাবলিশ করতে সাহায্য করবে। 
  • Bazaarvoice: এটি আপনাকে ওয়েবসাইট থেকে কাস্টমার রিভিউ এবং রেটিং কালেক্ট করতে এবং প্রদর্শন করতে সাহায্য করবে। 

উপসংহার 

আশা করছি ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট কী এবং এর গুরুত্ব নিয়ে বেশ ভালো একটা ধারনা পেয়েছেন। পাশাপাশি ইউজিসি সঠিকভাবে তৈরি করার জন্য উপরে উল্লিখিত টিপস এবং সাজেস্টড টুলস গুলো আপনাদের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। 

কারণ বর্তমানে যারা অনলাইন মার্কেটিং এর এই ভিড়ে টীকে থাকতে চাইবে, তাদের জন্য ইউজার জেনারেটেড কন্টেন্ট তৈরি করা আবশ্যক। 

Don't wait!
Get the expert business advice You need in 2022

It's all include in our newsletter!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More To Explore
ডিজিটাল মার্কেটিং এ নিশ বেজড কম্পিটিটর রিসার্চ কিভাবে করবেন
Marketing

ডিজিটাল মার্কেটিং এ নিশ বেজড কম্পিটিটর রিসার্চ কিভাবে করবেন?

আপনার বিজনেস নিশ কি হবে? কি নিয়ে কাজ করবেন? বা কোন মার্কেটিং স্ট্র্যাটেজিই এপ্লাই করবেন। সব কিছু সিলেক্ট করার আগে মোস্ট ইম্পর্ট্যান্ট ফ্যাক্ট হচ্ছে কম্পিটিটর

প্যাশনকে প্রিন্ট-অন-ডিমান্ড সাকসেস এ পরিণত করুন
Marketing

প্যাশনকে প্রিন্ট-অন-ডিমান্ড সাকসেস এ পরিণত করুন

জীবনে সাকসেসফুল হতে হলে অবশ্যই আপনাকে আপনার যেকোনো ধরনের কাজের প্রতি দৃঢ় প্যাশন গড়ে তুলতে হবে। আমাদের সকলের কিছু ভালো লাগার জিনিস রয়েছে যেমন ছবি আঁকা।