বাংলাদেশী জনপ্রিয় লিডিং বিটুবি কমার্স প্ল্যাটফর্ম – শপআপ

শপআপ - ShopUp

Share This Post

Share on facebook
Share on linkedin
Share on twitter
Share on email

শপআপ, একটি বাংলাদেশী ফুলস্টেক বিটুবি ইকমার্স প্ল্যাটফর্ম। ২০১৭ সালে যাত্রা শুরু হওয়া এই প্ল্যাটফর্মটির ফাউন্ডার এবং সিইও আফিফ জামান এবং প্লাটফর্মটির আরো দুজন দুই জন কো ফাউন্ডার সিফাত সারোয়ার এবং আতাউর চৌধুরি। 

বাংলাদেশী ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের বিজনেস অটোমেশন, ডেভেলপমেন্ট এবং ইন্টারনেট এবং টেকনলজিযুক্ত প্ল্যাটফর্ম ইউজ করে তারা তাদের বিজনেস আরও এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় নিয়ে কাজ করছে এই ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মটি। 

এই প্ল্যাটফর্মটির ফাউন্ডার আফিফ জামান এর দাদা বাড়ি পটুয়াখালির মদনপুরে। ০২ বাংলার মধ্যে সবচেয়ে বড় কুমারপাড়া সেখানে। সৌখিন জিনিস্পত্রের সাথে বিভিন্ন দৈনন্দিন ব্যবহারের জন্য জিনিসপত্র বানানোর জন্য প্রসিদ্ধ ছিল সেই কুমার পাড়াটি । কিন্তু যখন প্লাস্টিক লঞ্চ হয় বাংলাদেশে ওনাদের মার্কেটটা ডাউন হয়ে যায়।

রিসার্চ করে দেখলেন বড় বড় কোম্পানি গুলোর ডিস্ট্রিবিউশন চ্যানেল অনেক স্ট্রং। তারা চাইলেই তাদের প্রোডাক্ট সম্পর্কে খুব কম পুরো বাংলাদেশে প্রোডাক্টগুলো ছড়িয়ে দিতে পারে। কিন্তু এই কুমার পাড়ায় সেটা তারা পারছেননা। তারা মেলায় মেলায় এই প্রোডাক্টি বিক্রি করে। এবং অনেক মাসের পর মাস লেগে যায় প্রোডাক্ট ঘুরে আসতে। এতে অনেক প্রোডাক্ট নষ্ট হয়ে যায় আবার পেমেন্ট রিটার্ন আসতেও সময় লাগে। তখন আফিফ জামান চিন্তা করলেন এমন কিছু যদি বানানো যায় যাতে এমন কুমার পড়ার মতো লোকজন যারা কাস্টমার এক্সেস করতে পারে তাহলে অনেক সুবিধা হবে সবার। সেখান থেকেই শপআপের আইডিয়া নিয়ে আসেন আফিফ জামান। 

সেই থেকে যাত্রা শুরু করে বর্তমানে শপআপ এর রয়েছে বেশ কিছু জনপ্রিয় সার্ভিস সারা বাংলাদেশ জুড়ে সার্ভিসগুলো হলো বাংলাদেশী জনপ্রিয় লজিস্টিক সার্ভিস রেডেক্স, ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের জন্য মোকাম , কোনো রকম ইনভেস্ট ছাড়াই বিজনেস শুরু করার অন্যতম প্ল্যাটফর্ম শপআপ রিসেলার।

শপআপ রেডএক্স 

শপআপ - ShopUp

রেডএক্স, শপআপের একটি বহুল জনপ্রিয় সার্ভিস। দেশজুড়ে সবচেয়ে দ্রুত লজিস্টিক সল্যুশন দিচ্ছে রেডএক্স। ৬৪ জেলা এবং ৪৯৩ থানার যেকোন জায়গা থেকে আপনার পন্য পিক করে তারা আপনার কাস্টমারের কাছে পৌছিয়ে দিচ্ছে মতো। তাদের এই সফল যাত্রায় ৩৫০০ এরও বেশি ফ্রন্টলাইন রাইডার নিয়ে তারা কাজ করে যাচ্ছে। 

আপনি জানেন যে আপনি প্রোডাক্ট কোথা থেকে সোর্স করবেন বা কোথায় পাঠাবেন কিন্তু আপনি জানেন না যে আপনি আপনার প্রোডাক্টটি আপনার কাস্টমারের কাছে কিভাবে পাঠাবেন। একটি প্রোডাক্ট কাস্টমার এর কাছে সেইফ ভাবে পৌঁছানো এবং সেই পেমেন্ট ঠিক টাইম মতো পাওয়া হচ্ছে একটি বিজনেসের জন্য সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ। 

রেডএক্স দিচ্ছে একটি বিজনেসের প্রোডাক্ট ডেলিভারি জনিত সকল ধরণের সমাধান। দেশজুড়ে সবচেয়ে দ্রুত লজিস্টিকস সল্যুশন, সবচেয়ে বেশি রাইডার, ৩.৫ লাখ+ স্কয়ার ফিট এর ওয়্যারহাউস স্পেস এবং দেশজুড়ে সবচেয়ে বড় লজিস্টিকস নেটওয়ার্ক সার্ভিস প্রোভাইড করছে এই প্ল্যাটফর্মটি। এছাড়াও ব্যক্তিগত, ছোট ব্যবসা এবং কর্পোরেটদের জন্য ফার্স্ট-মাইল পিকআপ এবং লাস্ট মাইল ডেলিভারি সেবা, বাল্ক শিপমেন্ট, এফটিএল (পুরো ট্রাকলোড) ও এলটিএল (আংশিক ট্রাকলোড) সহ মালামাল পরিবহনের সকল সমাধান, সংরক্ষন, বাছাই এবং প্রক্রিয়াজাতকরণের পরিপূর্ণ সমাধান, ট্রাক ভাড়া, ইন্ডাস্ট্রি-অনুযায়ী ফ্যাক্টরি, প্রজেক্ট এবং বন্দরগুলোতে লোডিং-আনলোডিংয়ের সুবিধা, লজিস্টিকস সংক্রান্ত যে কোন সমস্যার সমাধানে অভিজ্ঞ টিমের সহায়তা, আপনার ব্যবসায়িক ধরনের প্রয়োজন বুঝে কাস্টমাইজড সল্যুশন দিচ্ছে রেডেক্স। 

পাশাপাশি ৩ দিনে গ্যারান্টিড ডেলিভারি ,ডোরস্টেপ পিকআপ ও ডেলিভারি, এসএমএস আপডেট, পরের দিনই পেমেন্ট, সেরা ক্যাশ অন ডেলিভারি রেট ও সিকিউর হ্যান্ডলিং সেবা দিচ্ছে প্ল্যাটফর্মটি। ঢাকার ভিতর ক্যাশ অন ডেলিভারি চার্জ ০% এবনং ঢাকার বাইরে ১%, সর্বোচ্চ নিরাপদে শিপমেন্টের নিশ্চয়তা ও ক্ষতিপূরণ সুবিধাও দিবে রেডএক্স। 

শপআপ মোকাম

মোকাম, শপআপের অন্যান্য সার্ভিস এর মতো অন্যতম একটি সার্ভিস। একজন মুদি দোকানদার যাতে নির্ভেজাল ভাবে বিজনেস করতে পারে তার জন্য শপআপের এই মোকাম সার্ভিসটি কাজ করছে। পুরো বাংলাদেশে প্রচুর পরিমাণের মুদি দোকানদার রয়েছে। এই জায়গায় জায়গায় মুদি দোকান থাকার কারণে আমরা হাতের কাছেই আমাদের প্রয়োজনীয় জিনিস গুলো পেয়ে যাই। কিন্তু এই মুদি দোকানদার গুলো অনেক প্রব্লেম কনটিনিউয়াস্লি ফেস করতে থাকে। তার মধ্যে রয়েছে সাপ্লাইয়ের, ডিস্ট্রিবিউটর এবং হোলসেলারদের কাছ থেকে প্রোডাক্ট সোর্সিং করা। প্রতিদিন তারা সমস্যায় ভুগছে প্রোডাক্ট এর স্বল্পতার কারণে, প্রাইস ওঠানামার কারণে অথবা প্রোডাক্ট এর ডেলিভারি সময়মতো না দেয়াতে। এবং তাদের ৭০% প্রোডাক্টই যেহেতু বাকিতে বিক্রি করে, তারা তাই তারা সেই ফিন্যান্সিয়াল সাপোর্টটাও পায়না। এরকম ধরণের প্রবলেম ফেস করে ছোট বিজনেসরা। 

শপআপ - ShopUp

মোকাম দিচ্ছে এই প্রত্যেকটা প্রবলেম এর সলিউশন। মোকাম এমন একটি ওয়ান স্টপ প্ল্যাটফর্ম যার মধ্যে সকল পন্য এভেইলএবল আছে। যেটা একটি মোবাইল অ্যাপ এর মাধ্যমে অ্যাক্সেসকরা যায়। প্রোডাক্ট অর্ডার দেয়ার পর ২৪ ঘন্টার মধ্যে আপনার গ্রোসারি শপ এর দরজার সামনে প্রোডাক্ট পৌছিয়ে দিবে। এবং তারা প্রোডাক্ট দিচ্ছে সবচেয়ে বেস্ট পাইকারি রেট এ। 

মোকাম এর উদ্দেশ্য ছিলো ছোট এবং মাঝারি বিজনেসীদের জীবনকে সহজ করে তোলা। তাদের প্ল্যাটফর্মে রয়েছে  ১০০০০ এর ও বেশি  পণ্য যা আপনি পেয়ে যাচ্ছেন পাইকারি মূল্যেতে। তার দিচ্ছে বাকিতে পন্য নেয়ার সুযোগ। এবং দেনা পাওনার হিসাব রাখতে পারছেন একটি ডিজিটাল ওয়েতে। 

শপআপ রিসেলার

শপআপ - ShopUp

রেডএক্স এবং মোকাম এর মতো শপআপ এর আরেকটি জনপ্রিয় সার্ভিস হচ্ছে শপআপ রিসেলার। জিরো ইনভেস্টমেন্টে ই কমার্স বিজনেস করার সুযোগ দিচ্ছে শপআপ রিসেলার প্ল্যাটফর্মটি। শপআপ  রিসেলার অ্যাপস বা তাদের ওয়েবসাইটে বিভিন্ন ক্যাটাগরির  প্রোডাক্ট সাজানো থাকে। প্রোডাক্ট এর প্রাইস এবং ডিটেইলস সব কিছু এখানে মেনশন করা থাকে। এবং আপনি ওদের এই পন্য কতো টাকার সেল করতে পারবেন কাস্টমারের কাছে সেটা মেনশন করা থাকে। 

এর জন্য শুধু মাত্র রিসেলার অ্যাপ বা ওয়েবসাইটে রিসেলার রেজিস্ট্রেশন করে ফেলতে হবে। আপনি প্রোডাক্ট এর ডিটেইলস এবং ছবি নিয়ে মার্কেটিং করুন এবং সেল হলে শপআপ রিসেলার প্রোডাক্টি আপনার কাস্টমারের কাছে পৌছিয়ে দিবে।

গ্লোবাল ইনভেস্টমেন্ট এবং ফিউচার টার্গেট

শপআপ এখন পর্যন্ত টোটাল ৮ টি রাউন্ডে মোট $১০৩.৪ মিলিয়ন ইনভেস্টমেন্ট কালেক্ট করেছে । সম্প্রতি ২০২১ এর ৭ সেপ্টেম্বরে একটি নতুন ফান্ডিং রাউন্ডে (সিরিজ – বি রাউন্ড) ৬৪০ কোটি টাকা ইনভেস্টমেন্ট সংগ্রহ করেছে এই প্রতিষ্ঠানটি , যা সাউথ এশিয়ান মার্কেটের সবচেয়ে বড় ফান্ডিং। তাদের এই ইনভেস্টমেন্ট যাত্রায় রয়েছে Sequoia Capital India, Omidyar Network, Bill & Melinda Gates Foundation, Valar Ventures এর মতো গ্লোবাল প্ল্যাটফর্মগুলো। 

যেহেতু শপআপ একটি টেকনোলজি বেসড বিজনেস টু বিজনেস প্ল্যাটফর্ম তাই তাদের লক্ষ্য বাংলাদেশে এর বিজনেস সোর্সিং এবং লাস্ট-মাইল লজিস্টিকস এর বেস্ট সল্যুশন প্রোভাইড করা।

Subscribe To Our Newsletter

Get updates and learn from the best

More To Explore

সোশ্যাল মিডিয়া
Case Study

সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মগুলো কীভাবে মিলিয়ন ডলার আয় করে !

আসলে তথ্য প্রযুক্তির এই যুগে যেসকল সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করে একটি ভার্চুয়াল কমিউনিটি বা কৃত্রিম সমাজ গড়ে তোলা যায় তাকেই মূলত সোশ্যাল মিডিয়া বা

বিজনেস আইডিয়া - Business idea
Business idea

ডিজিটাল সময়ে ২৩টি ইউনিক বিজনেস আইডিয়া

ইউনিক বিজনেস আইডিয়া খুঁজছেন? চাকরি করবো কেন, চাকরি দিবো এবং নিজের বস নিজে হবো। নিজস্ব বিজনেস থাকলে নিজের স্বাধীনতা থাকে। কখন, কোথায়, কিভাবে করবেন সবকিছু